গুগল গেইমারদের জন্য নিয়ে এলো 'স্টাডিয়া ক্লাউড'


যারা গেম খেলতে পছন্দ করেন তারা সাধারণত সনির প্লেস্টেশান, মাইক্রোসফটের এক্সবক্স ইত্যাদিই পছন্দ করে থাকেন। তবে এগুলোর সাথে প্রতিযোগিতা করতে গুগল আনলো স্টাডিয়া ক্লাউড (Stadia Cloud) গেমিং। যা গেইমারদেরকে দেবে সম্পূর্ণ নতুন অভিজ্ঞতা।

গুগলের এই গেমিং স্টাডিয়া ক্লাউড সচরাচর প্রচলিত গেমিং হার্ডওয়্যার গুলোর থেকে কিছুটা ভিন্ন। কারণ এই স্টাডিয়া ক্লাউডে গেম খেলতে কোনো ডিস্ক বা গেম ডাউনলোড করার প্রয়োজন হবে না। কেননা এটা পুরোটাই ক্লাউডের উপর নির্ভরশীল একটি ডিভাইস। এটা সরাসরি গুগলের ক্লাউড সার্ভারে গেম ইন্সটল করবে এবং সেই সার্ভার থেকেই গেম প্লে করবে। এজন্য গেমিং ক্ষেত্রে পাওয়া যাবে দুর্দান্ত পারফর্মেন্স।


স্মার্ট টিভি, ক্রোমকাস্ট আলট্রা, কম্পিউটার, গুগল পিক্সেল ইত্যাদি ডিভাইস গুলোতে গুগলের স্টাডিয়া ক্লাউড গেমিং এর অসাধারণ পারফর্মেন্স পাওয়া যাবে। শুরুতেই গুগল স্টাডিয়া ক্লাউডে গুগলের প্রতিশ্রুত সব ফিচার না পাওয়া গেলেও গুগল তার প্রথম ব্যবহারকারীদের জন্য একটা চমক রেখেছে। গুগল স্টাডিয়া ক্লাউডে শুরুর দিকের গেইমাররা এই গেমিং প্লাটফর্মে 22টি গেম খেলার জন্য প্রস্তুত পাবে। এই 22টি গেমের মধ্যে থাকবে Assassin's Creed Odyssey, Attack On Titan, Rise of the Tomb Raider, Destiny 2 The Collections, Mortal Kombat 11 এর মতো জনপ্রিয় গেমস গুলো। এছাড়াও Tom Clancy's Ghost Recon Breakpoint গেমটি সহ বেশ কয়েকটি গেম 2022 এ রিলিজ হওয়ার আগেই 2019 এই খেলতে পারবে স্টাডিয়ার ব্যবহারকারীরা। 


69 ডলারের কন্ট্রোলারের সঙ্গে গুগল স্টাডিয়া প্রো এর ব্যবহারকারীরা 9.99 ডলারের প্রতিমাসের সাবস্ক্রিবশনে এই গেম গুলো খেলতে পারবে।

এ ধরনের আরো বিষয়সহ বিজ্ঞান, টেকনোলজি, কি ও কিভাবে?, রিভিউ, লাইফস্টাইল, টিপস অ্যান্ড ট্রিকস্‌, মুভি আপডেট সহ আরো বিভিন্ন বিষয় সম্পর্কে জানতে নিয়মিত www.ideaworldbd.com সাইটটি ভিজিট করুন। 

বিজ্ঞান ও প্রযুক্তি সম্পর্কিত আপনার যেকোনো প্রশ্ন ও মতামত জানাতে আমাদের ফেসবুক গ্রুপে যোগ দিন অথবা আমাদের Contact Us পেজে জানাতে পারেন। আমাদের Facebook Page-এ লাইক দিয়ে আমাদের সাথেই থাকুন। ধন্যবাদ।

একটি মন্তব্য পোস্ট করুন

0 মন্তব্যসমূহ